অচেতনাবস্থায় একই পরিবারের ১০জন হাসপাতালে

প্রকাশিত: ০৭-০৭-২০১৮, সময়: ০৭:২৬ |
Share This
সখীপুরে শুক্রবার দুপুরে একই পরিবারের ১০জন অচেতন হয়ে পড়েন। প্রতিবেশী ও আত্মীয় স্বজনরা তাদের উদ্ধার করে বিকেলেই উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। চিকিৎসকদের ধারণা তাদের নেশাজাতীয় কিছু খাওয়ানো হয়েছে।
অসুস্থরা হলেন- উপজেলার প্রতিমা বংকী ফাজিল মাদ্রাসার সহকারী অধ্যাপক মিনহাজ উদ্দিন তালুকদার (৫০), তার স্ত্রী আনোয়ার হোসেন তালুকদার সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধানশিক্ষক মিনা পারভীন (৪০), তাদের দুই সন্তান মিরাজ তালুকদার (১৪) ও মেরিনা তালুকদার (৭), মিনহাজের শ্যালক জুয়েল আহমেদ (৩৫), গৃহকর্মী সখিনা বেগম (৪০), ভাবি বছিরন নেছা (৪০), ভাতিজা সবুজ তালুকদার (২৮), সবুজের স্ত্রী সুপ্তি আক্তার (১৮) এবং সবুজের বোন সাথি তালুকদার (২৫)। সখীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক শামছুল আলম বলেন, ‘অসুস্থদের প্রয়োজনীয় চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। তাদের নেশাজাতীয় কিছু খাওয়ানো হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।’
সখীপুর থানার ওসি এসএম তুহীন আলী বলেন, ‘শুক্রবার দুপুরে পৌরসভার ৪ নম্বর ওয়ার্ডের তালুকদারপাড়ায় অচেতনাবস্থায় একই পরিবারের ১০জন হাসপাতালে ভর্তির ঘটনাটি শুনেছি। অভিযোগ পেলে তদন্ত করে পরবর্তী ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।’
মিনহাজ উদ্দিন তালুকদারের ভাতিজা জাহাঙ্গীর তালুকদার বলেন, দুপুরের দিকে দুজন নারী পাশের বাড়ির মেহমান দাবি করে ঘরে ঢুকে গান শোনেন। ধারণা করা হচ্ছে, তারা নেশাজাতীয় কিছু স্প্রে করেছে।

Comments

comments

Leave a comment

ফেসবুকে আমরা

লেখা পাঠান

আপনিও লিখতে পারেন। হতে পারেন আপনার জেলা কিংবা উপজেলার প্রতিনিধি।

সিভি পাঠান


news@digitalbangla24.com

সর্বশেষ সংবাদ

উপরে