চট্টগ্রামে মুখ থুবড়ে পড়েছে ইউএস বাংলার বিমান

প্রকাশিত: ২৬-০৯-২০১৮, সময়: ০৮:৪৮ |
Share This

ঢাকা থেকে কক্সবাজারগামী ইউএস-বাংলার বিএস-১৪১ ফ্লাইট চট্টগ্রামের শাহ আমানত বিমানবন্দরের রানওয়েতে মুখ থুবড়ে পড়েছে। বিমানটিতে মোট ১৬৪ জন যাত্রী ছিল। এদের মধ্যে ১৫৩ জন প্রাপ্তবয়স্ক, পাঁচজন ক্রু এবং চারটি শিশু।

বুধবার (২৬ সেপ্টেম্বর) এই দুর্ঘটনা ঘটে। দুর্ঘটনার কারণে শাহ আমানত বিমানবন্দরে সব ধরনের ফ্লাইটের ওঠা-নামা বন্ধ রয়েছে। যাত্রীদের মধ্যে আতঙ্ক বিরাজ করছে

জানা গেছে, ঢাকা থেকে ইউএস বাংলার একটি ফ্লাইট উড্ডয়নের পর সামনের চাকায় ত্রুটি দেখা দেয়। এটি চট্টগ্রাম শাহ আমানত বিমানবন্দরে জরুরি অবতরণ করার সময় দুর্ঘটনায় পতিত হয়। ওই সময় বিমানটির সামনের দিক ক্ষতিগ্রস্ত হয়।

বিমানবন্দরের একটি সূত্র জানায়, বিমানটি জরুরি অবতরণের সময় সামনের চাকাটি সচল ছিল না। ভাগ্যক্রমে বিমানটিতে আগুন ধরেনি। ফলে সকলযাত্রী নিরাপদে নেমে আসতে সক্ষম হন।

দুর্ঘটনার বিষয়ে ইউএস-বাংলার মহাব্যবস্থাপক কামরুল ইসলাম বলেন, সম্ভবত উড়োজাহাজটির সামনের অংশে কোনও একটি ত্রুটি ধরা পড়ার পড়েই তা দ্রুত অবতরণের সিদ্ধান্ত হয়।

কি কারণে অবতরণের সময় ফ্লাইটটি মুখ থুবড়ে পড়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, নোজ ডাউনে কোনও একটি সমস্যা ছিলো বলেই এমনটা হয়েছে।

চট্টগ্রাম শাহ আমানত বিমানবন্দরের সিভিল এভিয়েশন বিভাগের ব্যবস্থাপক উইং কমান্ডার সারওয়ার ই জাহান জানান, বেলা সাড়ে ১১টায় ঢাকা থেকে ডিএস ১৪১ ফ্লাইটটি কক্সবাজারের উদ্দেশে রওনা দেয়। সেটির দুপুর সাড়ে ১২টায় কক্সবাজার পৌঁছার কথা ছিল। তবে যান্ত্রিক ত্রুটি দেখা দেওয়ায় বিমানের সামনের চাকা না খোলায় সেটি কিছুক্ষণ চট্টগ্রামের আকাশে চক্কর দেয়। পরে দুপুর দিয়ে ১টা ২০ মিনিটে সেখানে জরুরি অবতরণ করে।

তিনি আরও বলেন, বিমানটিতে মোট ১৬৪ জন যাত্রী ছিল। এদের মধ্যে ১৫৩ জন প্রাপ্তবয়স্ক, পাঁচজন ক্রু এবং চারটি শিশু।

চট্টগ্রাম ফায়ার সার্ভিসের উপসহকারী পরিচালক জসীমউদ্দিন জানান, দুর্ঘটনার খবর পেয়ে তার চারটি ইউনিট সেখানে যায়। তবে বিমানটি নিরাপদে অবতরণ করেছে এবং হতাহতের ঘটনা ঘটেনি।

Comments

comments

Leave a comment

ফেসবুকে আমরা

লেখা পাঠান

আপনিও লিখতে পারেন। হতে পারেন আপনার জেলা কিংবা উপজেলার প্রতিনিধি।

সিভি পাঠান


news@digitalbangla24.com

সর্বশেষ সংবাদ

উপরে